চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম বাংলা (Word File ও Pdf File) ডাউনলোড

tliio
0

চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম বাংলা

চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়মঃ যখন কোনো একজন ব্যক্তি অন্য কোনো একজন ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান এর নিকট অনুরোধমূলক পত্র লিখবে তখন তাকে বলা হবে, আবেদন পত্র। ঠিক একইভাবে আপনি যদি কোনো নির্দিষ্ট প্রতিষ্ঠানের চাকরির জন্য আবেদন লিখবেন তখন তাকে বলা হবে, চাকরির আবেদন পত্র। আর এই চাকরির আবেদন পত্র লেখার সময় আপনাকে বেশ কিছু বিষয়ের দিকে গুরুত্ব দিতে হবে। এর পাশাপাশি আপনাকে অবশ্যই চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম গুলো জানতে হবে। কেননা, আপনার চাকরির আবেদন পত্রটি যদি অন্যদের থেকে প্রফেশনাল হয় তাহলে আপনি চাকরির ক্ষেত্রে অন্যান্য প্রার্থীর তুলনায় বেশি প্রাধান্য পাবেন। তাই চলুন, এবার চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম গুলো জেনে নেই।



চাকরির জন্য আবেদন পত্র এর গুরুত্ব কতটুকু?

মনে করুন, আপনার একটি প্রতিষ্ঠান আছে সেই প্রতিষ্ঠানে জনবল নিয়োগ দিবেন। এখন আপনি  কোন ধরনের লোকদের আপনার কোম্পানি তে নিয়োগ দিবেন? নিশ্চয়ই আপনার কোম্পানি সম্পকৃত কাজে যাদের দক্ষতা আছে  তাদের নিয়োগ দিবেন। আর যখন আপনার প্রতিষ্ঠানের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিতে বিভিন্ন ব্যক্তি আবেদন করবে তখন আপনি অবশ্যই তাদের দেওয়া আবেদন পত্র থেকে সবার আগে তাদের দক্ষতা ও অভিজ্ঞতা যাচাই করবেন। আর এটাই হলো, আবেদন পত্র এর মূল কাজ।


ঠিক একই ভাবে যখন আপনি একজন চাকরি প্রার্থী হয়ে কোনো কোম্পানিতে আবেদন করবেন তখন আপনার নিজের মধ্যে থাকা দক্ষতা, অভিজ্ঞতা ও যোগ্যতা কে প্রকাশ করার জন্য আবেদন পত্র এর গুরুত্ব অপরিসীম। 

চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম বাংলা

ভিন্ন ভিন্ন চাকরির আবেদন পত্র এর ক্ষেত্রে ভিন্ন নিয়ম মানতে হয়। তবে এমন অনেক চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম আছে যে নিয়ম গুলো প্রায় সব ধরনের চাকরির ক্ষেত্রে প্রযোজ্য।

আর এবার আমি আপনাকে সেই চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম গুলো সম্পর্কে জানিয়ে দিবো। 


যেমন,


নিয়ম-১ঃ আপনার আবেদন পত্র এর শুরুর অংশে অবশ্যই প্রতিষ্ঠান ও প্রতিষ্ঠানের ঠিকানা নির্ভুল ভাবে লিখতে হবে।

নিয়ম-২ঃ তারপরের অংশে আপনার আবেদন এর মূল বিষয় কে খুব সংক্ষিপ্ত আকারে ফুটিয়ে তুলতে হবে।

নিয়ম-৩ঃ বিস্তারিত বলার আগে বাধ্যতামূলক (জনাব/জনাবা/মহোদয়) ইত্যাদি বলে সম্বোধন করতে হবে।

নিয়ম-৪ঃ এরপর আপনার ব্যক্তিগত বক্তব্য খুব সংক্ষিপ্ত আকারে তুলে ধরতে হবে।

নিয়ম-৫ঃ এরপর আপনার নাম, ঠিকানা, যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতা নির্ভুল ভাবে উল্লেখ করতে হবে।  

নিয়ম-৬ঃ তারপরের অংশে আপনাকে (সবিনয় নিবেদন/ বিনীত নিবেদক) এর কথা উল্লেখ করতে হবে।

নিয়ম-৭ঃ সবার শেষের অংশে আপনাকে আপনার নাম, তারিখ ও যোগাযোগ এর মাধ্যম প্রদান করতে হবে।

মূলত যখন আপনি কোনো প্রতিষ্ঠানে চাকরির জন্য আবেদন পত্র লিখবেন। তখন আপনাকে যে সকল নিয়ম মানতে হবে সেই নিয়ম গুলো উপরে সংক্ষিপ্ত আকারে তুলে ধরা হয়েছে।


চাকরির আবেদন পত্র লেখার টিপস

সবার শুরুতে আমি আপনাকে একটি কথা বলেছি। আর সেই কথাটি হলো, এমন অনেক চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম আছে যে গুলো সম্পর্কে আপনার সঠিক ধারনা রাখতে হবে।  

এবার আমি চাকরির আবেদনপত্র লেখার নিয়ম গুলো সম্পর্কে কিছু টিপস শেয়ার করবো। আশা করি, এই টিপস গুলো আপনার অনেক কাজে আসবে। যেমন,

  • চাকরিদাতা প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানুন।
  • আপনার কাজ সম্পর্কে সঠিক ধারনা নিন।
  • নিজের অভিজ্ঞতা ও যোগ্যতা কে প্রকাশ করুন।
  • প্রফেশনাল আবেদনপত্র লেখার চেষ্টা করুন।
  • আবেদন পত্রে থাকা ভুল গুলো পরীক্ষা করুন।

উপরের আলোচনায় আমি চাকরির আবেদনপত্র লেখার নিয়ম গুলো বলেছি।  এবার  উক্ত নিয়ম গুলো সম্পর্কে একটু বিস্তারিত জেনে নিতে হবে। যেমন,

চাকরিদাতা প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানুন

যখন আপনি একজন প্রার্থী হয়ে কোনো একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরির জন্য আবেদন করবেন তখন অবশ্যই আপনাকে সেই প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জেনে নিতে হবে। কেননা, যখন আপনি এই কাজটি করবেন তখন আপনার চাকরির আবেদন পত্র লিখতে সুবিধা হবে।

আর নির্দিষ্ট একটি কোম্পানি সম্পর্কে বিস্তারিত জানার অন্যতম উপায় হলো, অনলাইন। তাই আপনি আপনার কোম্পানির ওয়েবসাইট, ফেসবুক পেজ ইত্যাদি ভিজিট করবেন। আর তাদের কোম্পানির বিস্তারিত তথ্য গুলো সংগ্রহ করবেন।

আপনার কাজ সম্পর্কে সঠিক ধারনা নিন

একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরির আবেদন পত্র লেখার আগে যদি আপনি সেই কোম্পানিতে আপনার কাজ সম্পর্কে জানেন, তাহলে আপনার আবেদন পত্র লেখার সময় সেটি অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

কেননা, যখন আপনি আপনার কাজ সম্পর্কে জানবেন, তখন আপনি চাকরির আবেদনপত্রে সেই কাজের বিষয় গুলোকে যুক্ত করতে পারবেন।

এতে করে যখন আপনার আবেদনটি নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠানের নিকট পৌঁছাবে তখন আপনি তাদের কাছে অধিক বেশি গুরুত্ব পাবেন। যা আপনার চাকরি হওয়ার সম্ভাবনা কে আরো কয়েক গুন বাড়িয়ে দিবে।

নিজের অভিজ্ঞতা ও যোগ্যতা কে প্রকাশ করুন

মনে রাখবেন, পৃথিবীর কোনো কোম্পানি একজন অদক্ষ, অনভিজ্ঞ ব্যক্তিদের নিয়োগ দিতে চাইবে না। তাই আপনি যেহুতু একটি কোম্পানি তে চাকরির জন্য আবেদন করবেন। সেহুতু নিশ্চয়ই আপনার নির্দিষ্ট বিষয়ে দক্ষতা থাকবে, অভিজ্ঞতা থাকবে এবং আপনার যোগ্যতা থাকবে।

তাই আপনার প্রধান কাজ হবে আপনার সেই দক্ষতা ও যোগ্যতা কে আবেদনপত্রে ফুটিয়ে তোলা। যেন নিয়োগকারী  প্রতিষ্ঠান খুব সহজেই আপনার দক্ষতা ও যোগ্যতা কে দেখতে পারে।


জীবন বৃত্তান্ত ফরম, Bangla CV Format, বাংলা সিভি Word File , Pdf File, Google Docs ফাইল ডাউনলোড

প্রফেশনাল আবেদন পত্র লেখার চেষ্টা করুন

চাকরির জন্য আবেদন পত্র লেখার সময় একটা বিষয়কে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিবেন। সেটি হলো, আপনার লেখা আবেদন টি যেন কখনই আন-প্রফেশনাল না হয়।

কারন, যখন একটি প্রতিষ্ঠান থেকে নিয়োগ প্রকাশ করা হয়। তখন আপনার মতো হাজার হাজার প্রার্থী সেই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিতে আবেদন করে। আর এই সকল প্রার্থীদের মধ্যে যাদের আবেদনপত্র গুলো আন প্রফেশনাল। তারা প্রথম যাচাই প্রক্রিয়া থেকেই বাদ পড়ে যায়।

তাই নিজেকে আপডেট রাখার পাশাপাশি আপনার চাকরির আবেদন পত্র কে আপডেট রাখবেন।

আবেদন পত্রে থাকা ভুল গুলো পরীক্ষা করুন

শুনুন, জীবনে সব কাজে ভুল করলেও, আবেদনপত্র এর মধ্যে কোনো ভুল করা যায়না। কারণ, যদি আপনার আবেদন পত্রতে কোনো ভুল হয় তখন নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান আপনার প্রতি একটা খারাপ ধারনা তৈরি হবে।

তাই আবেদন লেখার পর সে গুলো বার বার চেক করে দেখবেন। যদি কোনো ভুল থাকে, তাহলে অবশ্যই সেটি সংশোধন করে নিবেন।


চাকরির আবেদন পত্র লেখার নমুনা 

এতক্ষনের আলোচনা থেকে আমরা চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম গুলো সম্পর্কে জানতে পারলাম। 


তো এবার আমি আপনার সাথে একটি আবেদন পত্রের নমুনা শেয়ার করবো। যে নমুনা অনুযায়ী

আপনি বিভিন্ন চাকরির আবেদন পত্র লিখতে পারবেন। যেমন,


তাং

বরাবর,

.....................................

.....................................

.....................................


বিষয়: ‘‘....................... ’’ পদে চাকুরীর জন্য আবেদন


জনাব,

যথাবিহিত সম্মান প্রদর্শন পূবক সবিনয় নিবেদন এই যে, আমি গত ইং........................... তারিখ রোজ................. ‘‘.............................’’’ পত্রিকায় প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তি মারফত জানিতে পারিলাম যে, আপনার অধীনে কিছু সংখ্যাক ‘‘.......................’’ পদে লোক নিয়োগ করা হইবে। আমি উক্ত পদে একজন আগ্রহী প্রার্থী হিসেবে আমার জীবন বৃত্তান্ত ও প্রয়োজনীয় তথ্যাবলী আপনার সদয় বিবেচনার জন্য নিম্নে উপস্থাপন করিলাম।


০১। প্রার্থীর নাম                        :...............................................

০২। পিতার নাম                       :...............................................

০৩। মাতার নাম                       : ...............................................

০৪। স্থায়ী ঠিকানা                     : গ্রাম................ডাকঘর.............উপজেলা.............জেলা...............

০৫। বর্তমান ঠিকানা                : গ্রাম.......... .....ডাকঘর.............উপজেলা.............জেলা...............

০৬। জন্ম তারিখ                      : ...............................................

০৭। বৈবাহিক অবস্থা                :...............................................

০৮। জাতীয়তা                         : ...............................................

০৯। ধর্ম                                  :...............................................

১০। লিঙ্গ                                 :...............................................

১১। জাতীয় পরিচয় পত্র নং : ...............................................

১২। মোবাইল নং                     : ...............................................

১৩। শিক্ষাগত যোগত্যা             : ...............................................

ক্রঃনং  

 পরীক্ষার নাম

 গ্রুপ/বিষয়

 পাশের সন

 বোর্ড/বিশ্ববিদ্যালয়

 জিপিএ/সিজিপিএ/বিভাগ

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 ১৪। অভিজ্ঞতা                    : 

অতএব, জনাব সমীপে আকুল প্রার্থনা আমি যাহাতে উক্ত পদে নিয়োগ পাইতে  পারি তাহার বিহিত ব্যবস্থা করিতে আপনার  একান্ত মর্জি হয়।

বিনীত নিবেদক


(..........................)


সংযুক্তি :

০১। সকল শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদ পত্রের ফটোকপি সত্যায়িত।

০২। ০৩(তিন) কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি সত্যায়িত । 

০৩। জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি সত্যায়িত।

০৫। নাগরিক সনদপত্র । 

০৬। চারিত্রিক সনদপত্র সত্যায়িত। 


আপনার জন্য আমাদের শেষকথা

প্রিয় পাঠক, আপনারা যারা চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম সম্পর্কে জানতে চেয়েছেন। তাদের জন্য আজকে গুরুত্বপূর্ণ কিছু চাকরির আবেদন পত্র লেখার নিয়ম শেয়ার করা হয়েছে। 


আশা করি, আজকের এই আর্টিকেল থেকে আপনি অনেক উপকৃত হয়েছেন। আর যদি আপনি এই ধরনের

অজানা বিষয় গুলো খুব সহজ ভাষায় জানতে চান। তাহলে আমাদের সাথে থাকবেন। ধন্যবাদ।


চারিত্রিক সনদপত্র PDF । চারিত্রিক সনদপত্র MS Word File ফাইল ডাউনলোড


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0মন্তব্যসমূহ

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন (0)

#buttons=(Ok, Go it!) #days=(20)

Our website uses cookies to enhance your experience. Check Now
Ok, Go it!